1. litonsaikat@gmail.com : neelsaikat :
  2. shahjahanauh@gmail.com : কক্সবাজার আলো : কক্সবাজার আলো
  3. syedalamtek@gmail.com : syedalam :

ঈদগাঁওতে যত্রতত্র স্থানে যানবাহনের স্ট্যান্ড

  • আপডেটের সময় : বুধবার, ৯ সেপ্টেম্বর, ২০১৫
  • ১০ দেখা হয়েছে

এম আবুহেনা সাগর, ঈদগাঁও :
জেলার দ্বিতীয় বানিজ্যিক কেন্দ্র হিসাবে সর্ব মহলে সু-পরিচিত কক্সবাজার সদর উপজেলার ঈদগাঁওতে সড়ক- উপসড়ক এবং ফুটপাত দখল করে বসানো হয়েছে যত্রতত্র স্থানে যানবাহনের স্ট্যান্ড। স্থানীয় প্রশাসনের নিরবতার সুযোগে নিত্য দূভোগ পোহাতে হচ্ছে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীসহ নানা পেশার মানুষজনদেরকে। প্রশাসনের নাকের ডগায় এসব পরিচালিত হয়ে আসলেও কর্তৃপক্ষ তাদের বিরুদ্ধে অভিযান চালালেও পরক্ষণে তা আবার একই কায়দায় পরিণত হয়ে পড়ে। যাতে করে যত্রতত্র স্থানে যানবাহনের স্ট্যান্ডের ফলে যানজট একের পর এক বাড়ছে বলে একাধিক পথচারী ও ব্যবসায়ীদের অভিযোগ। এসব এলোমেলো যানবাহনের স্ট্যান্ডের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণের জোর দাবী জানিয়েছে সচেতন মহল। জানা যায়, এসব যানবাহনের যত্রতত্র স্থানে স্ট্যান্ড গড়ে উঠেছে। বাজার অভ্যন্তরে সড়ক দখল করে সিএনজি, মাহিন্দ্রা, ইজি বাইক, টমটম, অটোরিক্সা ও ম্যাজিক গাড়ির যত্রতত্র স্থানে বেপরোয়া বাসস্ট্যান্ডের কারণে প্রতিনিয়ত একের পর এক যানজটের সৃষ্টি হচ্ছে। এসব বিষয়ে বাজার কতৃপক্ষের নেই মাথা ব্যাথা। বিশাল আয়তনের এই ঐতিহ্যবাহী ঈদগাঁও বাজারের অভ্যন্তরে রয়েছে ঈদগাঁও আন্ত সড়কে চলাচলরত পরিবহন সমুহের ছোট বড় একাধিকটির মত স্থায়ী স্ট্যান্ড। তৎমধ্যে ঈদগাঁও চৌফলদন্ডী সড়কে চলাচলকারী সিএনজি স্ট্যান্ডটির অবস্থান হচ্ছে বাজারের দক্ষিণ পার্শ্বের ব্রিজ সংলগ্ন স্থানে, ঈদগাঁও পোকখালী ফরাজী পাড়া রোড়ের সিএনজি স্ট্যান্ডটির অবস্থানও বাজারের দক্ষিণাংশে। এই দু’টো ষ্টেশনের প্রায় শতাধিক গজের মধ্যেই ঈদগাঁও চৌফলদন্ডী সড়কের জীপ ষ্টেশন, আবার ডিসি সড়কের দক্ষিণ পার্শ্বে চেয়ারম্যান গেইট সংলগ্ন স্থানে ঈদগাঁও চৌফলদন্ডী, খুরুস্কুল-কক্সবাজার সড়কের চলাচলকারী ম্যাজিক গাড়ির ষ্টেশন, ম্যাজিক গাড়ির ষ্টেশনের পরপরই ঈদগাঁও চৌফলদন্ডী-নতুন মহাল সড়কের ইজি বাইকের ষ্টেশন, বাঁশঘাটায় ঈদগাঁও গোমাতলী সড়কের ইজি বাইক ষ্টেশন, তার অদূরে বাঁশঘাটা ব্রিজ সংলগ্ন স্থানে রয়েছে ইসলামাবাদের নানা এলাকার চলাচলকারী অটো রিক্সা ষ্টেশন, ঈদগাঁও ভূমি অফিস গেইট সংলগ্ন স্থানে ঈদগাঁও মাইজ পাড়া ও ফরাজী পাড়া সড়কের টমটম ষ্টেশন। অন্যদিকে বাসষ্টেশনের মুখে কক্সবাজার চট্টগ্রাম মহা সড়কের লাল ব্রিজ সংলগ্ন স্থানে ঈদগাঁও’র বিভিন্ন স্থানের চলাচলকারী রিক্সার স্ট্যান্ড। আরও জানা যায়, যানবাহন কর্তৃপক্ষ নানা মহলকে ম্যানেজ করে বাজারে যত্রতত্র স্থানে এসব স্ট্যান্ডের সুযোগ করে নিচ্ছে। এতে করে সংশ্লিষ্টরা লাভবান হলেও সাধারণ পথচারী, শিক্ষার্থী ও রোগীদের ভোগান্তি অসহনীয় পর্যায়ে চলে গেছে। যার ফলে যানজটের কারণে অফিসগামী লোকজন সহ ব্যবসায়ীদের নিদারুন পোহাতে হচ্ছে। এদিকে চলাফেরার জন্য ফুটপাত থাকলেও সড়কের দু’পার্শ্বের ফুটপাত এলাকা ভাসমান হকারদের দখলে চলে গেছে বহু পূর্বে। ফুটপাত দখলের কারণে বাজারের ডিসি সড়কের আকার দিন দিন ছোট হয়ে আসছে। এছাড়াও যত্রতত্র স্থানে বাস স্ট্যান্ডের পাশাপাশি চট্টগ্রাম থেকে আগত মালবাহী নানা বড় বড় যানবাহন বাজারে যেখানে সেখানে দাড়ানোর ফলে ছোট ছোট যানবাহন চলাচলসহ পথচারী ও শিক্ষার্থীরা চলাফেরা করতে দারুনভাবে বিপাকে পড়েছে। এব্যাপারে ব্যবসায়ী ও সচেতন মহলের মতে, যানজট ও ফুটপাতের বিরুদ্ধে প্রযোজনীয় আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণের জোরদাবী প্রশাসনের নিকট। অন্যদিকে দুর-দুরান্ত থেকে বাজারে আগত পথচারীর মতে, ঈদগাঁও বাজারে যত্রতত্র স্থানে বাসস্ট্যান্ডের মত এহেন অবস্থা চলতে থাকলে ব্যবসায়ী ও পথচারীরা কি দুর্ভোগ আর দুর্গতিতে পড়বে? এমন প্রশ্ন সাধারণ লোকজনের।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরও খবর
  • © ২০১৪ - ২০২০ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | কক্সবাজার আলো .কম
Site Customized By NewsTech.Com