1. litonsaikat@gmail.com : neelsaikat :
  2. shahjahanauh@gmail.com : কক্সবাজার আলো : কক্সবাজার আলো
  3. syedalamtek@gmail.com : syedalam :
  4. bblythe20172018@mail.ru : traceyhowes586 :
শিরোনাম :
সাংবাদিক মামুনকে হত্যার চেষ্টা ঘটনায় জড়িদের দ্রুত গ্রেফতারের দাবী সাংবাদিক ইব্রাহীম খলিল মামুনকে গাড়ি চাপা দিয়ে হত্যার চেষ্টা বাংলাদেশ দূতাবাস আবুধাবিতে ঐতিহাসিক ৭ই মার্চ উদযাপন কলাতলী ডলফিন মোড় থেকে ইয়াবাসহ যুবক আটক কক্সবাজার উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের প্রকল্প পরিদর্শন করলেন গণপূর্ত প্রতিমন্ত্রী ঈদগাঁও থানার উদ্যোগে ঐতিহাসিক ৭ই মার্চ পালিত ৭ই মার্চের বঙ্গবন্ধুর ভাষণে নিহিত ছিল বাঙালীর মুক্তির ডাক-অতিরিক্ত ডিআইজি জাকির হোসেন স্বাধীনতা পুরস্কার পাচ্ছেন ১০ ব্যক্তি-প্রতিষ্ঠান এডঃ ওসমান গণি’র মৃত্যুতে কক্সবাজার জেলা আইনজীবী সমিতির শোক উন্নয়নশীল দেশে উত্তরণে জাতিসংঘের চূড়ান্ত সুপারিশ প্রাপ্তিতে র‌্যাবের আনন্দ উদযাপন 

ঈদগাঁও বাজারে যত্রতত্র স্থানে ‘টাল কোম্পানী’র ডিজিটাল মার্কেটিং

  • আপডেটের সময় : শনিবার, ২৬ ডিসেম্বর, ২০১৫
  • ১৯ দেখা হয়েছে

এম আবু হেনা সাগর, ঈদগাঁও :
উত্তরা ঠান্ডা বাতাসের সাথে বিগত কয়েক দিনের শৈত্য প্রবাহ যোগ হওয়ায় মেঘে ঢাকা থাকছে সূর্য্য। আর এ নিয়ে জেলার ব্যস্ততম বিপনন কেন্দ্র ঈদগাঁও বাজারে যত্রতত্র স্থানে গরম কাপড় ব্যবসা ফের জমে উঠছে। বাজারে আগত ছয় ইউনিয়নের জনগণ ভীড় জমাচ্ছেন বিশেষ করে ফুটপাতের মুল্য সাশ্রয়ী গরম কাপড়ের স্টল গুলোতে। এমনকি বাজারের যত্রতত্র স্থানে ফাঁকা জায়গা হলেই টাল কোম্পানীর ডিজিটাল মার্কেটিং যেন বেশ চোখে পড়ার মত। কারণ অগ্নিমূল্যের এ বাজারে কমদামে বাহারী এবং মান সম্মত শীত বস্ত্র পাবার স্থান স্থানীয় ভাষায় ‘‘টাল কোম্পানী’’ নামক দোকান গুলো। বাসষ্টেশন, ডিসি রোডের দু’পাশের বিভিন্ন ফুটপাত,পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের সামনে,কৃষি ব্যাংক ভবনের নিচে, অটবি শো-রুমের সামনে, মাতবর মার্কেট হোটেল নিউ ফোর স্টার চত্ত্বর সহ বিভিন্ন স্থানের গরম কাপড় ব্যবসায়ীরা যুগের সাথে তাল মিলিয়ে ‘‘ডিজিটাল সিস্টেমে’’ চলতি এ শীত মৌসুমে বিকিকিনির চমক দেখাচ্ছেন। বৃহত্তর ঈদগাঁও এলাকা তথা ছয় ইউনিয়ন- পোকখালী, জালালাবাদ, ইসলামাবাদ, ইসলামপুর, চৌফলদন্ডী ও ঈদগাঁও’র প্রত্যান্ত গ্রামাঞ্চলের জনসাধারণ বাজারে এসে বিক্রেতাদেরকে মোবাইল নাম্বার দিয়ে যাচ্ছেন। কাপড়ের নতুন ‘‘গাইট’’ খোলা হলে গ্রাহকদেরকে মিসকল্ দিলেই গ্রাহকগণ কল্ ব্যাক করে নতুন গাইট খোলার খবর পেয়ে গরম কাপড় কেনার জন্যে বিভিন্ন স্থান থেকে ছুটে আসেন। কারণ নতুন গাইট খুললে মানসম্পন্ন জ্যাকেট, ব্লেজার, মাপ্লার, টুপি, গেঞ্জি, চাদর, পেন্ট সহ রকমারী শীত বস্ত্র পাওয়া যায় বলে জানালেন একাধিক ক্রেতা। অন্যথায় বাছাই হয়ে গেলে এসব পাওয়া যায়না। তখন আবার বিক্রেতার মিসকল ও টাল খোলার অপেক্ষায় থাকতে হয়। ঈদগাঁওর বেশ ক’জন গ্রাহকের মতে, এসব গাইট সর্বস্ব দোকানে কমদামের মধ্যেই বাচ্চাদের রকমারী কাপড় থেকে মহিলা ও পুরুষদের বাহারী শীতবস্ত্র পাওয়া যাচ্ছে। কাপড় বাছাই, পছন্দ ও দামাদামিতে মগ্ন মুরশিদা, মাহমুদা, কাজলীসহ আরো অনেক নারী ক্রেতাদের মতে, নতুন কাপড়ের গাইড খুলে বেশ কয়েকটি শীতকালীন কাপড় চোপড় কিনে ফেলেন সাশ্রয়ী মূল্যে। আবার এক বিক্রেতার মতে, বিভিন্ন অভিজাত গ্লাস ফিটিংস্, টাইলস্ মোড়ানো শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত দোকানে টাল থেকে কাপড় নিয়ে ফিনিশিং করে উচ্চ মুল্যের ষ্টিকার সাঁটানো হয়। গত কয়েক দিনে ডিজিটাল সিস্টেমের বেচাবিক্রি বেশ জমে উঠেছে বলেও জানান। নিম্নআয়ের জনগণ থেকে বিত্তবানরাও মান সম্মত পোষাকের আশায় ক্ষেত্র বিশেষে ফুটপাতের হকার স্টলে আসতে বাধ্য হয়।

এই বিভাগের আরও খবর
  • © ২০১৪ - ২০২০ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | কক্সবাজার আলো .কম
Site Customized By NewsTech.Com