পরিবহন ধর্মঘট প্রত্যাহার

বাসচালক হত্যার প্রতিবাদে চট্টগ্রামের বিভিন্ন রুটে শ্রমিকদের ডাকা ধর্মঘট প্রত্যাহার করা হয়েছে।
প্রশাসনের আশ্বাসে বৃহস্পতিবার বেলা ১১টার দিকে চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসনের সঙ্গে শ্রমিক নেতারা বৈঠকে বসেন। বৈঠকে প্রশাসনের আশ্বাসের প্রেক্ষিতে ধর্মঘট প্রত্যাহারের ঘোষণা দেয়া হয়। এরপর চট্টগ্রামের সব রুটে পরিবহন চলাচল স্বাভাবিক হয়।
শ্রমিক নেতাদের অভ্যন্তরীণ দ্বন্দ্বের মধ্য দিয়ে আংশিকভাবে চলছে রংপুরের পরিবহন ধর্মঘট। তবে রংপুর থেকে কুড়িগ্রাম ও লালমনিরহাটেও শুরু হয়েছে যান চলাচল। এছাড়া, দিনাজপুর, ঠাকুরগাঁও, পঞ্চগড় ও নীলফামারী ও গাইবান্ধায় চলছে পরিবহন ধর্মঘট।
গত সোমবার রাতে চট্টগ্রামের পটিয়া উপজেলার শান্তিরহাট এলাকার কক্সবাজার থেকে ছেড়ে আসা শ্যামলী পরিবহনের চালক জালাল উদ্দিনকে ডিবি পরিচয়ে বাস থেকে নামিয়ে বেধড়ক পেটানো হয়। পরে মুমূর্ষু অবস্থায় তাকে বাসের মধ্যে ফেলে রাখা হয়। আহত চালককে উদ্ধার করে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে আসা হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।
এ ঘটনার প্রতিবাদে মঙ্গলবার সন্ধ্যায় নগরীর কোতোয়ালী থানার বিআরটিসি মার্কেটের বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন শ্রমিক ফেডারেশন চট্টগ্রাম আঞ্চলিক কার্যালয়ে বৈঠক করে ২৪ ঘণ্টা ধর্মঘট পালনের সিদ্ধান্ত নেয় পরিবহন শ্রমিকরা।
এছাড়া আগামী রবিবার ভোর ছয়টা থেকে পরদিন সোমবার ভোর ছয়টা পর্যন্ত বৃহত্তর চট্টগ্রামের পাঁচ জেলায় সব ধরনের যানবাহন চলাচল বন্ধ থাকবে বলেও ঘোষণা দেয় তারা।
কর্মসূচি অনুযায়ী বুধবার সন্ধ্যা ছয়টা থেকে চট্টগ্রামের ৮৭টি রুটে পরিবহন ধর্মঘট শুরু করে শ্রমিকরা। এতে চরম দুর্ভোগে পড়েন এসব সড়ক ব্যবহার করা সাধারণ মানুষ।
পরে প্রশাসনের সঙ্গে বেলা এগারোটায় বৈঠকের পর ধর্মঘট প্রত্যাহার করে নেয় শ্রমিকরা। এর ফলে ১৮ ঘণ্টা পর চট্টগ্রামে পরিবহন চলাচল স্বাভাবিক হয়। কক্সবাজার আলো ডেস্ক :

উপদেষ্টা সম্পাদক : হাসানুর রশীদ
সম্পাদক ও প্রকাশক : মুহাম্মদ শাহজাহান

নির্বাহী সম্পাদক : ছৈয়দ আলম

যোগাযোগ : ইয়াছির ভিলা, ২য় তলা শহিদ সরণী, কক্সবাজার। মোবাইল নং : ০১৮১৯-০৩৬৪৬০

গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের তথ্য অধিদপ্তরে নিবন্ধনের জন্য আবেদিত

Email:coxsbazaralo@gmail.com