1. litonsaikat@gmail.com : neelsaikat :
  2. shahjahanauh@gmail.com : কক্সবাজার আলো : কক্সবাজার আলো
  3. syedalamtek@gmail.com : syedalam :
  4. bblythe20172018@mail.ru : traceyhowes586 :

সাংবাদিক এম জামাল উদ্দিনের সংক্ষিপ্ত জীবনী

  • আপডেটের সময় : সোমবার, ২৪ আগস্ট, ২০১৫
  • ৩৮ দেখা হয়েছে

“বেঁচে আছি তাই খাই। ক্ষিদে আমার খাবারের নয়, সংবাদের। যে সংবাদ গ্রাম বাংলার হাজারো নিপীড়িত মানুষের, হাজারো নিযাতিত মা বোনের, দুর্নীতি কবলিত ক্ষয়িষ্ণু সমাজের শোষন ও বঞ্চনায় ক্ষতবিক্ষত ভাগ্যহত মানুষের। যদি স্বর্গের দেবতারা করুনা করে আমাকে কোন বর দিতো, তবে বলতাম শুধু এই হতভাগা মানুষগুলোকে মানুষের মত করে বাঁচার অধিকার দাও। বঞ্চনা কি কেবল খাবারের? তাতো নয়। নানাবিধ বঞ্চনায় মানবেতর জীবন যাপন করছে আজ এদেশের লাখো লাখো নরনারী। এদের বঞ্চনার, সত্যিকারের ইতিহাস তুলে ধরাই আমার জীবন। আমি জানি এর সমাধান আমার কাছে নয়। কিন্তু যাদের কাছে রয়েছে এদের জীবনকাঠি তাদের কাছে ওদের খবরটা পৌঁছে দেয়াটাই আমার জীবনের ব্রত। যে পথে আমি চলেছি, জানি এপথে সফলতা বড় একটা দেখা যায় না। আমি আমার কাজ করে চলেছি। জীবন বাজি রেখে খবরের খোঁজে এদিক ওদিক চষে বেড়াচ্ছি। অন্যায়ের বিরুদ্ধে লিখছি, বঞ্চিত মানবসমাজের কথা লিখছি, সাম্প্রদায়িকতার বিষবৃক্ষ নিধনের লক্ষ্যে লিখছি। লিখনির পিছনে এই ছুটে চলাটাই জীবন। ”
এই কথাগুলো যিনি বললেন, তাঁর নাম সাংবাদিক এম. জামাল উদ্দিন। বিগত ২৫ বছর ধরে চট্টগ্রামের সংবাদ জগতে যার বিচরন। সংবাদ জগত তাঁকে কি দিয়েছে সেই হিসাব কখনো করেননি, বরং হিসাব করেছেন তিনি সংবাদ জগতকে কতটুকু দিয়েছেন! কেবল সময়ই তাঁর স্বাক্ষী। প্রতিমুহুর্তে প্রতিরোধ প্রতিঘাতের সম্মুখিন হয়ে ও যিনি তাঁর লেখনিকে আঁকড়ে ধরে পড়ে আছেন, নানা ষড়যন্ত্রের শিকার হয়েও যাকে এই জগত থেকে বিতাড়িত করা যায়নি, সেই কর্মনিষ্ঠ সাংবাদিক এর জীবনসম্পর্কে আলোকপাত করা বড় জটিল ও দুরুহ। কিন্তু তাঁর সম্পর্কে কিছু না লেখাটা আরো বেশী দুঃখজনক। স্ত্রী ও স্কুল কলেজে পড়–য়া দুই পুত্রকন্যার সংসার নিয়ে যেভাবে তিনি এত বড় দায়িত্ব কাঁধে নিয়ে খুঁড়িয়ে খুঁড়িয়ে পথ চলেছেন, তাকে আর যাই হোক চলা বলেনা। তবুও তিনি চলেছেন এবং তাঁর সমস্ত জীবনী শক্তি দিয়ে সমাজ পরিবর্তনের স্বপ্নগাঁথা রচনা করছেন।
দৈনিক চট্টগ্রামের পাতা,সাপ্তাহিক আলোকিত চট্টগ্রাম এর প্রকাশক সম্পাদক এম জামাল উদ্দিনের সংক্ষিপ্ত পরিচিতি: রায়পুর পীর বড় মিয়া সাহেবের  নতুন বাড়ীর মরহুম আব্দুুুর রবের ৭ম সন্তান ্এম জামাল উদ্দিন ১৯৭১ সালে ২৫ জুলাই জন্মগ্রহন করেন চট্টগ্রামে। বিগত ২০০০ সালে চট্টগ্রামের জনপ্রিয় পত্রিকা সাপ্তাহিক আলোকিত চট্টগ্রাম এর প্রকাশক সম্পাদক হয়ে সম্পাদক হিসাবে তাঁর আত্মপ্রকাশ। এছাড়াও  ২০১৩ ইং  সাল থেকে চট্টগ্রামের আকেকটি  নুতন স্থানীয় দৈনিক চট্টগ্রামের পাতা নামক পত্রিকার প্রকাশক সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব পালন করে চলেছেন। সেই সাথে বিগত ২০১০ ইং সাল থেকে সাপ্তাহিক আলোকিত চট্টগ্রামের অনলাইন সংস্করন আলোকিত চট্টগ্রাম ডট.কম এর মাধ্যমে নিয়মিত সংবাদ প্রকাশ করে চলেছেন। ২০১১ ইং সাল থেকে তিনি জাতীয় মানবাধিকার ইউনিটি,র চট্টগ্রাম বিভাগীয় সমন্বয়কারী  এবং তৎপুর্বে  বাংলাদেশ মানবাধিকার কাউন্সিল(বামাক) চট্টগ্রাম বিভাগীয় সমন্বয়কারী পদে ছিলেন। ১৯৯৪ সাল থেকে ২০০৭ সাল পর্যন্ত জাতীয় সাংবাদিক সংস্থার চট্টগ্রাম বিভাগীয় সাধারণ সম্পাদক এর দায়িত্ব পালন করেন । সেই সাথে বিগত ২০০৫ সালে চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন এ স্বতন্ত্র মেয়র পদে অংশ গ্রহন করেছিলেন। এছাড়াও চট্টগ্রামস্থ বৃহত্তর নোয়াখালী যুব কল্যান সমিতির সহ সভাপতি ছিলেন। চট্টগ্রামে যে সব সংগঠন এর সাথে জড়িত ছিলেন তাদের মধ্যে রয়েছে, শাপলা কুড়ির আসর,শিকড়,মুক্তিযোদ্ধা শিল্পী সমন্বয় সাংস্কৃতিক স্কোয়াড এর সহ সভাপতি ছিলেন ঐ সংগঠনটির প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি ছিলেন চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামীলীগের আইন বিষয়ক সম্পাদক এডভোকেট শেখ ইফতেখার সাইমুল চৌধুরী । বিগত তত্বাবধায় সরকার আমলে মিথ্যা মামলায় গ্রেফতার, নির্যাতনের পর কারাবরন করেন, মামলাটি বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ সরকার  এর মাননীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রনালয় থেকে হয়রানী মূলক বিবেচনায় প্রত্যাহার করেছেন বাংলাদেশ সরকার। এম জামাল উদ্দিন লক্ষীপুর ২ আসনের সাবেক সংসদ ও ক্রীড়া ব্যক্তিত্ব জনাব আলহাজ্ব হারুনুর রশিদ এর আপন খালাতো ।  তিনি চট্টগ্রাম সহ লক্ষীপুর ও রায়পুর বাসীর ও সার্বিক সহযোগীতা চেয়েছেন।

এই বিভাগের আরও খবর
  • © ২০১৪ - ২০২১ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | কক্সবাজার আলো .কম
Site Customized By NewsTech.Com